রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ১৩ই অগ্রহায়ণ ১৪২৮

বাড়িতে মশা-মাছিসহ পোকা-মাকড় দূর করার কৌশল

অনন্যা চৈতী//

পোকামাকড়ের উপদ্রব নেই এমন বাড়ি খুব কমই আছে। একে তো বর্ষাকাল তাই এই সমস্যার সম্মুখীন এখন প্রায় সকল বাড়ির মানুষই। এসব পোকামাকড় দূর করতে বাজারে একাধিক ওষুধ পাওয়া যায়, যা ভালো কাজও করে। কিন্তু এসব ওষুধ ক্ষতিকর কেমিক্যাল দিয়ে তৈরি হওয়ায় মানুষের শরীরে এর প্রভাব পড়ে। সরাসরি না হলেও নিঃশ্বাসের মধ্যে দিয়ে শরীরে ঢুকে যায় সেই বিষ। তাই যদি ঘরোয়া উপায় অবলম্বন করা যায়, তাহলে ক্ষতির শঙ্কা প্রায় থাকে না বললেই চলে। আজ রইলো পোকামাকড় দূর করার কিছু ঘরোয়া কৌশল।

পিঁপড়া: টেবিলে কিছুক্ষণ খাবার রেখে একটু এদিক ওদিক গেলেই ফিরে এসে দেখা মিলবে সারি বেঁধে চলা পিঁপড়ের দল। আবার রান্নাঘরেও একই অবস্থা।
১. শশা টুকরো করে কেটে রান্নাঘরে ঢোকার পথে রেখে দিন।
২. সাবান পানিতে গুলে নিয়ে তা ঘরের মধ্যে স্প্রে করে দিতে পারেন।
৩. পুদনিা পাতার গুঁড়োও পিঁপড়ে প্রতিরোধে সহায়ক।
৪. পিঁপড়ের বংশ নির্বংশ করতে হলে এক লিটার পানিতে এক চামচ বরকি পাউডার ও এক কাপ চিনি মেশান। খানিকটা তুলোর মধ্যে ওই মিশ্রণ মিশিয়ে একটি ছিদ্রযুক্ত পাত্রে ভরে রাখুন। গন্ধে পিঁপড়েরা আসবে এবং মুখ দেওয়া মাত্রই মরে যাবে।

তেলাপোকা: বাড়িতে তেলাপোকার নেই এমন কথা খুব কমই শোনা যায়।
১. তেলাপোকার উপদ্রব থেকে রক্ষা পাওয়ার সবচেয়ে ভাল উপায় হল রান্নাঘর সবসময় পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখা।
২. পিঁপড়ে দূর করার জন্য যেমন শশা কেটে রাখতে পারেন, এক্ষেত্রেও একই পদ্ধতি কাজে লাগাতে পারেন।
৩. সরাসরি সাবান পানি তেলাপোকার উপর প্রয়োগ করলে তেলাপোকা মরে যায়।
৪. যে জায়গাগুলোতে তেলাপোকা আসে সেই জায়গাগুলোয় বোরিক পাউডার, চিনি, কর্নমিল মিশিয়ে রেখে দিন।

মশা: একে তো বর্ষাকাল তার উপর আবার বেড়েছে ডেঙ্গু, চিকেনগুনিয়ার মতো মশাবাহী রোগের উপদ্রব। আপনার ঘরটি মশামুক্ত রাখতে নিতে পারেন কিছু ঘরোয়া পদক্ষেপ-
১. বাড়িতে কখনও পানি জমতে দিবেন না।
২. একভাগ আদার রসের সঙ্গে পাঁচভাগ পানি মিশিয়ে ঘরে স্প্রে করুন। আদার রস স্প্রে করলে ঘরে মশা আসে না।
৩. মশার কামড় থেকে পরিত্রাণ পেতে শরীরে নিমের তেল মাখুন।

মাছি: বর্ষাকাল আসলেই অন্যান্য কীটপতঙ্গের সাথে সাথে বেড়ে যায় মাছির উপদ্রবও।
১. মাছি দূর করতেও ঘরবাড়ি পরিষ্কার রাখটা জরুরি।
২. যে জায়গাটিতে মাছির সমস্যা বেশি সেখানে ইউক্যালিপটাস তেলে ভেজানো তুলো রেখে দিন, মাছি আসবে না।
৩. বাড়ির নর্দমাটি যখনই পরিষ্কার করবেন, ফুটন্ত পানি এবং ব্লিচিং পাউডার দিয়ে পরিষ্কার করুন।

টিকটিকি: ঘর থেকে টিকটিকি দূর করতে রয়েছে কিছু সহজ ঘরোয়া উপায়।
১. ঘরের কোণে ব্যবহৃত ডিমের খোসা ঝুলিয়ে রাখুন, এর তিব্র গন্ধ টিকটিকিকে দূরে রাখে।
২. কাটা পেঁয়াজও টিকটিকিকে দূরে রাখতে সাহায্য করে।
৩. ঘরে ময়ূরের পালক থাকলেও টিকটিকি আসে না।

সংবাদটি আপনার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন