রবিবার, ২৮ নভেম্বর ২০২১ | ১৩ই অগ্রহায়ণ ১৪২৮

ঈদের আগেই দেশে আসছে ৫ লাখ টিকা

ঈদকে সামনে রেখে দেশে আসছে চীনের কাছ থেকে পাওয়া উপহারের পাঁচ লাখ ডোজ করোনা ভ্যাকসিন। চীনে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মাহাবুবুজ্জামান জানিয়েছেন, বিশেষ বিমানে ১১ অথবা ১২ মে সিনাফোর্মের টিকা ঢাকায় এসে পৌঁছাবে।গতকাল বুধবার সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে এ তথ্য জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী মোমেন।

তিনি বলেন, চীনের রাষ্ট্রদূত আমাদের বলেছেন, উপহারের পাঁচ লাখ টিকা ১২ তারিখের মধ্যেই চলে আসবে।

সম্পতি জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভা শেষে ব্রিফিংয়ে ভারতের টিকার চুক্তি নিয়ে জানতে চাইলে পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান টিকার চুক্তির বিষয়ে আইনী বিষয় তুলে ধরেন। একনেকের বৈঠক শেষে অনলাইনে মন্ত্রীর কার্যালয় থেকে এ ব্রিফিং অনুষ্ঠিত হয়।

টিকা সংক্রান্ত সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে পরিকল্পনামন্ত্রী বলেন, চুক্তি অনুযায়ী নৈতিকভাবে টিকা দিতে বাধ্য ভারত। তবে তারা আমাদের প্রতিবেশী। সেখানে করোনায় কি মারাত্মক সংক্রমণ চলছে, সেটা আমরা জানি। এ কারণে তাদেরও নিজেদেরই করোনার টিকার সঙ্কট তৈরি হয়েছে। তবে টিকা সংগ্রহে সরকার বসে নেই। বিকল্প চ্যানেল থেকে টিকা সংগ্রহের কাজ চলছে। তবে একনেকের মূল বৈঠকে করোনার টিকা নিয়ে কোন কথা হয়নি, যোগ করেন মন্ত্রী। ব্রিফিংয়ে পরিকল্পনা সচিব মোহাম্মদ জয়নুল বারী, বাস্তবায়ন, পরিবীক্ষণ ও মূল্যায়ন বিভাগের (আইএমইডি) সদস্য এবং সচিব প্রদীপ রঞ্জন চক্রবর্তী, ভৌত অবকাঠামো বিভাগের সদস্য সচিব মামুন-আল-রশীদ, আর্থ সামাজিক অবকাঠামো বিভাগের সদস্য সচিব নাসিমা বেগম, শিল্প শক্তি বিভাগের সদস্য শরিফা খানসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

ঈদের আগেই আসছে চীনের করোনার টিকা।ঈদ-উল-ফিতরের আগেই চীনের টিকা সিনোফার্ম পাওয়ার প্রত্যাশা করছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. একে আবদুল মোমেন। একইসঙ্গে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কাছ থেকে অক্সফোর্ড-এ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা পেতে যোগাযোগ এখনও অব্যাহত রাখা হয়েছে বলে তিনি জানিয়েছেন।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, ঈদের আগে টিকা দেয়ার জন্য চীন সরকার ইতোমধ্যে কাজ শুরু করেছে। ঢাকার চীনা রাষ্ট্রদূতও এ বিষয়ে আশ্বাস দিয়েছেন। আমরা চীনের সিনোফার্মের টিকার বিষয়ে আশাবাদী।

একইসঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রসহ যে সাতটি দেশের হাতে অক্সফোর্ড-এ্যাস্ট্রাজেনেকার মজুদ রয়েছে সেই সব দেশ থেকেও টিকা পাওয়ার বিষয়ে আশা রয়েছে।

ড. মোমেন জানান, চীনে মে দিবসের পাঁচদিনব্যাপী ছুটি চলছে। এই ছুটি ৫ মে শেষ হবে। ছুটির কারণে সেখানে সব কিছু বন্ধ রয়েছে।

সংবাদটি আপনার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন